এড়িয়ে না গিয়ে তলবে সাড়া দিয়ে ইডির অফিসে হাজিরা দিলেন কুণাল ঘোষ, চলছে জিজ্ঞাসবাদ

0

কলকাতা: বঙ্গে নির্বাচন আসতেই তৎপর কেন্দ্রীয় সংস্থা ইডি। সারদাকাণ্ডে ফের তলব করা হল তৃণমূল নেতা কুণাল ঘোষকে। ভোট আসতেই যেন বেশি করে সক্রিয় হয়ে তদন্তের কাজে নামছে সিবিআই ও ইডির মতো কেন্দ্রীয় সংস্থাগুলি। আগেই ইডি সূত্রের জানানো হয়েছিল, মঙ্গলবার বেলা ১১ টায় কুণাল ঘোষকে বিধাননগরের সিজিও কমপ্লেক্সে তলব করা হয়েছে। সেই তলবের নির্দেশ মেনে ইডির অফিসে হাজির হয়েছেন তৃণমূল নেতা কুণাল ঘোষ।

নির্বাচন যত এগিয়ে আছে ততই পারদ চড়ছে রাজ্য রাজনীতিতে। এটাই প্রথম নয় আগেও রাজ্যসভার সাংসদকে ২ হাজার ৪৫৯ কোটি টাকার আর্থিক কেলেঙ্কারি মামলার তদন্তের জন্য ইডি একাধিকবার ডেকে পাঠিয়েছে। এই অভিযোগের কারনে ৩৪ মাস জেলেও খেটেছেন কুণাল ঘোষ। তবে আজ আবারও ডেকে পাঠিয়েছিল কেন্দ্রীয় তদন্তকারী সংস্থা। হাজির হয়েছেন তৃণমূল সাংসদ। চলছে জিজ্ঞাসাবাদ। তবে যখন বাংলার শাসন ভার দখল নিয়ে তৃণমূল-বিজেপির লড়াই চলছে পুরোদমে তখন কুণাল ঘোষকে ইডির তলব নিয়ে নিয়ে নতুন করে জল্পনা শুরু হয়েছে।

তবে এই বিষয় নিয়ে স্পষ্ট বক্তব্য পেশ করেছেন কুণাল ঘোষ। তিনি এড়িয়ে যাননি বরং তদন্তে সহযোগিতা করতে গিয়েছেন ইডির অফিসে। তাঁকে ডেকে পাঠানো নিয়ে তৃণমূল নেতা সংবাদ মাধ্যমকে বলেছিলেন, “আমি কয়েকদিন আগেই ইডির নোটিশ পেয়েছি। তারিখটা সম্ভবত ২৪ ফেব্রুয়ারি। তবে জেলায় ভোট প্রচারের কাজে ব্যস্ত ছিলাম। বর্তমানে আমি কলকাতায়। মঙ্গলবার ইডির অফিসে যেতে বলা হয়েছে। আমি অবশ্যই যাব। কারণ, আমি ২০১৩ সাল থেকে কখনও কোনও এজেন্সির তদন্তে বাধা দিইনি। অতীতেও যখন ডেকে পাঠানো হয়েছে, আমি গিয়েছি। সবরকম তথ্য দিয়েছি। ভবিষ্যতেও ১০০ বার ডাকলে যাব।” এর আগে কয়লাপাচার কাণ্ডে তৃণমূল যুব কংগ্রেসের সভাপতি অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়ের স্ত্রী রুজিরা বন্দ্যোপাধ্যায়ের বাড়িতে গিয়ে জেরা করেছে সিবিআই। তবে কুণালকে জেরা করে সারদাকাণ্ড কোন নয়া মোড় নেয় এখন সেটাই দেখার।