শহরের শ্রমিক আবাসনে জল বিষক্রিয়াকে ঘিরে আতঙ্ক, মৃত ১ 

0

কলকাতা: কলকাতা পুরসভার অন্তর্গত ভবানীপুর এলাকার ৭৩ নং ওয়ার্ডে পানীয় জলে বিষক্রিয়ার ঘটনায় মৃত্যু হল একজনের, অসুস্থ আরও বেশ কয়েকজন। জল বিষক্রিয়ায় মৃত ব্যক্তির নাম ভুবনেশ্বর দাস বয়স ৪৩ বছর। তিনি ঝাড়খণ্ডের বাসিন্দা। ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগে কাজ করেন বলে খবর। এছাড়া আরও ৭ থেকে ৮ জন গুরুতর অসুস্থ হয়ে বর্তমানে হাসপাতালে চিকিৎসাধীন। জলে বিষক্রিয়া এই ঘটনাটি যেহেতু কলকাতা পুরসভার শ্রমিক আবাসনে ঘটেছে, তাই অভিযোগের আঙুল সরাসরি উঠেছে পুরভবনের দায়িত্বপ্রাপ্ত আধিকারিকদের বিরুদ্ধে। কারণ আবাসনের জল থেকে স্বাস্থ্য, পরিষ্কার এবং পরিচ্ছন্নতা পুরোটাই নিয়ন্ত্রণ করে পুরসভা।

আজ সোমবার দুপুরে ভবানীপুরে স্থানীয় ওয়ার্ড কো-অর্ডিনেটর রতন মালাকার ঘটনাটির সত্যতা স্বীকার করে জানিয়েছেন, ”পানীয় জলের লাইনের সঙ্গে নিকাশি নালার সংযোগ ঘটে যাওয়ায় জলে বিষক্রিয়া সৃষ্টি হয়েছে। তবে যিনি মারা গিয়েছেন, তাঁর আগে থেকেই সিরোসিস অফ লিভার ছিল। পরে জলের বিষক্রিয়ার প্রভাবে মৃত্যু ত্বরান্বিত হয়েছে।” একইসঙ্গে তিনি বলেন আরও ৬০ থেকে ৭০ জন সংক্রমিত হন এবং তাঁদের হাসপাতালে ভরতি করতে হয়নি। পুরসভার তরফ থেকে প্রতি বাড়ি বাড়ি বিশুদ্ধ জলের সাথে ORS দেওয়া হচ্ছে। এই ঘটনা নিয়ে পুরসভার মুখ্য প্রশাসক ফিরহাদ হাকিম পানীয় জল সরবরাহ ও স্বাস্থ্যবিভাগের কাছে দ্রুত রিপোর্ট চেয়েছেন।

এই ঘটনার থেকে অনেক প্রশ্ন উঠছে। নিকাশিনালার সঙ্গে কি ভাবে পানীয় জলের লাইনের সংযোগ ঘটল, তা এখনও কিছুতেই বুঝে উঠতে পারছেন না কেউ। ভুবনেশ্বর দাসের এই জল বিষক্রিয়ায় মৃত্যুর ঘটনা ঘিরে শ্রমিক আবাসনে সৃষ্টি হয়েছে তীব্র আতঙ্ক। জল পান করতে কার্যত ভয় পাচ্ছেন সকলেই। এই আতঙ্ক কাটাতে পুরসভার তরফেবিশুদ্ধ জল সরবরাহ করা হচ্ছে। তবে গোটা বিষয়টি এখন খতিয়ে দেখা হচ্ছে।