মুখ্যমন্ত্রীর মেডিক্যাল রিপোর্ট চুরির চেষ্টা এসএসকেএম হাসপাতালে, তবে কি রয়েছে রাজনৈতিক কারণ!

0

কলকাতা: গত ১০ মার্চ নন্দীগ্রামে পায়ে আঘাতের পরে এসএসকেএম হাসপাতালে ভরতি হন তৃণমূল সুপ্রিমো তথা মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। চিকিৎসাধীন থাকার সময় তাঁর যে মেডিক্যাল টেস্ট হয় সেই সব টেস্টের রিপোর্ট ‘চুরি’ করার চেষ্টা হয়। এমন তাই অভিযোগ উঠেছে ওই হাসপাতালেরই দুই কর্মীর বিরুদ্ধে। গোটা ঘটনা খতিয়ে দেখা হচ্ছে বলে জানিয়েছেন এসএসকেএম এর সুপার।

ঘটনাটি ঘটেছে শুক্রবার জানা যাচ্ছে,এসএসকেএম হাসপাতালের উডবার্ন ওয়ার্ডের সাড়ে ১২ নম্বর কেবিন থেকে মুখ্যমন্ত্রীর সমস্ত মেডিক্যাল রিপোর্টস নিয়ে যাওয়া হচ্ছিল হাসপাতালের রিপোর্ট রুমে। ঠিক সেই সময় ওই হাসপাতালের দুই কর্মী মুখ্যমন্ত্রীর রিপোর্টস গুলো খুলে ছবি তুলতে যায়।এই ঘটনাটি নজরে আসে আর এক সিনিয়র কর্মীর।সে সাথে সাথে ওই দুই কর্মী কে বাধা দায় ছবি তুলতে। হাসপাতাল সূত্রে জানানো হয়েছে ওই দুই কর্মী কে প্রশ্ন করা হলে তারা উত্তর দেয় ‘ যেহেতু মুখ্যমন্ত্রী আহত হয়ে এই হাসপাতালেই ভর্তি হন চিকিৎসার জন্য সেহেতু নিছক কৌতুহলবশত তাঁর রিপোর্ট দেখার চেষ্টা তাঁর কোথায় চোট লেগেছিল?কতটা তাঁর শারীরিক অবনতি হয়েছিল’? এছাড়া আর কোন কারণ নেই বলে জানায় তারা।

এই ঘটনার জেরেই প্রশ্ন ওঠে কেনো তারা মুখ্যমন্ত্রীর রিপোর্ট এর ছবি তোলার চেষ্টা করেন?তবে কি এর পিছনে রয়েছে কোনো রাজনৈতিক চক্রান্ত।যেহেতু মুখ্যমন্ত্রীর আঘাত কে ঘিরে এবং তাঁর হুইচেয়ারে ঘিরে ভোট প্রচার নিয়ে চলছে রাজনৈতিক তর্জা ফলে খুব স্বাভাবিক ভাবেই প্রশ্ন উঠেছে তবে কি এই ঘটনার পিছনে রয়েছে কোনো রাজনৈতিক দূরভিসন্ধি। হাসপাতাল পক্ষ থেকে অবশ্য জানানো হয়েছে ওই দুই কর্মীর শুধু মুখের সবটা উড়িয়ে দেওয়া হচ্ছে না। গোটা ঘটনা খতিয়ে দেখা হচ্ছে এবং সন্দেহ জনক কিছু প্রকাশ্যে আসলেই ওই দুই কর্মীর বিরুদ্ধে যথাযথ আইনি ব্যবস্থা নেওয়া হবে বলেই জানিয়েছেন হাসপাতালের তরফে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here