“মুখ্যমন্ত্রী শাড়ি নয়, বারমুডা পড়ুন”, এই কুরুচিকর মন্তব্য ঘিরে তৃণমূলে চাঞ্চল্য, ক্ষমা চাইতে হবে দিলীপকে

0

কলকাতা: পুরুলিয়ার বান্দোয়ানে প্রকাশ্যে জনসভা থেকে ‘শাড়ি নয়, বারমুডা পড়ুন।’ এই বলে রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী সর্বোপরি একজন নারীকে কটাক্ষ করলেন বিজেপি রাজ্য সভাপতি দীলিপ ঘোষ। দিলীপের এই মন্তব্য কে ঘিরে তীব্র নিন্দা জানাচ্ছে তৃণমূল। তৃণমূল দিলীপের এই মন্তব্যের বিরুদ্ধে টুইটারে জানায় ‘এইরকম কুরুচিকর মন্তব্য দিলীপবাবু ছাড়া আর কারও থেকে প্রত্যাশিত নয়! একজন মহিলা মুখ্যমন্ত্রীর সম্বন্ধে এইরকম নিন্দনীয় ভাষা প্রয়োগ প্রমাণ করে যে বিজেপি নেতারা মহিলাদের সম্মান করে না। বাংলার মা-বোনেরা মমতার প্রতি এই অপমানের যোগ্য জবাব দেবে ২রা মে’।

কিছুদিন আগেই প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী নিজে বলেছিলেন, মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের চোটের খবরে তিনি নিজেও চিন্তিত। বিজেপি তাদের ইশতেহারে মহিলাদের জন্য একাধিক প্রতিশ্রুতি প্রকাশ করেছে যেমন ‘কেজি থেকে স্নাতকোত্তর পর্যন্ত মেয়েদের বিনামূল্যে পড়াশোনা, সরকারি চাকরিতে মহিলাদের জন্য ৩৩% সংরক্ষণ, গণপরিবহণে মহিলাদের সম্পূর্ণ বিনামূল্যে যাত্রা, মেয়েদের ১৮ বছর হলেই এককালীন ২ লক্ষ টাকা প্রভৃতি’। ইশতেহারে কিছু বলার পরেও বিজেপির রাজ্য সভাপতির একজন মহিলার সম্পর্কে এহেন কুরুচিকর মন্তব্য থেকে বোঝাই যাচ্ছে আদপে বিজেপি মহিলাদের ঠিক কতটা সম্মান দেয় এমনটাই দাবি তৃণমূলের।

দীলিপ ঘোষের এহেন মন্তব্যের বিরুদ্ধে সরব তৃণমূল। তাদের দাবি দিলীপ ঘোষকে দ্রুত ক্ষমা চাইতে হবে। তৃণমুলের কুণাল ঘোষ এই ঘটনার বিরুদ্ধে তীব্র নিন্দা করে বলেন একজন মহিলা সম্পর্কে কীভাবে এ জাতীয় মন্তব্য করা যায়? অপরদিকে এই ঘটনার প্রতিক্রিয়ায় বিজেপির মন্তব্য, ‘ভোটের ময়দানে নানা মন্তব্য আদানপ্রদান করা হয়। সবটাই ব্যক্তিগত হিসেবে নেওয়া ঠিক নয়’।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here