খুব দ্রুত আরও একটি আর্থিক প্যাকেজের কথা ঘোষণা করবে মোদী সরকার: কেন্দ্রীয় মুখ্য অর্থনৈতিক উপদেষ্টক

0
narendra modi

নয়াদিল্লি: করোনা যে এক ধাক্কায় অনেক কিছুই পাল্টে দিয়েছে তা আর বলার অপেক্ষা রাখে না। পরিস্থিতি সামাল দিতে ভারতে তৃতীয় দফায় লকডাউনের কথা ঘোষণা করেছেন প্রধানমন্ত্রী। এত দিন পর্যন্ত দেশের মানুষের জন্য একবারই আর্থিক প্যাকেজের কথা ঘোষণা করেছিল মোদী সরকার। তৃতীয় দফার লকডাউন শুরু হতে চললেও নতুন করে কোনও আর্থিক প্যাকেজের কথা ঘোষণা করেনি কেন্দ্র। তবে কেন্দ্রের মুখ্য অর্থনৈতিক উপদেষ্টা কৃষ্ণমূর্তি সুব্রমনিয়ন জানিয়েছেন খুব দ্রুত আরও একটি আর্থিক প্যাকেজের কথা ঘোষণা করতে চলেছে সরকার।

করোনা এসে বিশ্ব সহ ভারতের অর্থনীতির কোমরও ভেঙ্গে দিয়েছে। নতুন করে ঘুরে দাঁড়ানোর জন্যই দ্বিতীয় দফার আর্থিক প্যাকেজের কথা ঘোষণা করতে চলেছে মোদী সরকার এমনটাই জানিয়েছেন কেন্দ্রের মুখ্য অর্থনৈতিক উপদেষ্টা। এই প্রসঙ্গে তিনি বলেন, “দ্বিতীয় আর্থিক প্যাকেজ খুব শীঘ্রই প্রত্যাশিত। এবং সেটারই কাজ চলছে। সরকার সব সেক্টরকেই পরিকল্পিতভাবে এর আওতায় আনতে চাইছে যাতে সীমিত ক্ষমতাকেই পুরোপুরি ব্যবহার করা যায়। তবে প্রাথমিক লক্ষ্য থাকবে গ্রামীণ অর্থনীতি, অসংগঠিত ক্ষেত্র এবং ক্ষুদ্র ও মাঝারি শিল্প এবং সেইসব বড় শিল্পক্ষেত্র যা সরাসরি মানুষের জীবনে প্রভাব ফেলে। আমরা চায় মানুষের টাকা যাতে সঠিক এবং পরিকল্পিতভাবে খরচ হয়, তা নিশ্চিত করতে।”

দেশে করোনা সংক্রমণের হারের ভিত্তিতেই তৃতীয় দফার লকডাউনের কথা ঘোষণা করা হয়েছে কেন্দ্রের পক্ষ থেকে। তবে সংক্রমণের নিরিখে রেড অরেঞ্জ এবং গ্রীন জোনে অঞ্চল ভাগ করে দিয়েছে কেন্দ্র সরকার। বিভিন্ন জোনের ভিত্তিতে বেশ কিছু ক্ষেত্রে ছাড় দেওয়া হয়েছে। লকডাউনের মধ্যেই দেশের অর্থনৈতিক ভীত শক্ত করার জন্য প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি শনিবার কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী, অর্থমন্ত্রীদের সঙ্গে বৈঠক করেন। কৃষি, ক্ষুদ্র ও মাঝারি শিল্পকে চাঙ্গা করার বিষয় নিয়ে তিনি বৈঠক হয় সেখানে।

ভারতের অর্থনীতিকে চাঙ্গা করার জন্য কি কি পদক্ষেপ গ্রহণ করা উচিত তার একটি রূপরেখা অর্থমন্ত্রকের পক্ষ থেকে প্রধানমন্ত্রীর কাছে পেশ করা হয়েছে বলেই সূত্রের খবর।দ্বিতীয় আর্থিক প্যাকেজে সাধারণ মানুষের অনেকটাই উপকার হবে বলেই জানিয়েছেন কেন্দ্রের মুখ্য অর্থনৈতিক উপদেষ্টা। তবে কৃষ্ণমূর্তি সুব্রমনিয়ন জানিয়েছেন, “ব্রিটেনের মতো দেশগুলিতে ৪০ শতাংশ লোক সরাসরি কর দেয়। আর আমাদের সেটা ১০ শতাংশেরও কম। তাই ওদের মতো অতটা আর্থিক প্যাকেজে ঘোষণা সম্ভব না। তবে এটাই শেষ প্যাকেজ নয়।”

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here