সোনিয়া গান্ধী করেছিলেন ভিত্তি প্রস্তর স্থাপন, এবার অটল টানেলের উদ্বোধন করলেন প্রধানমন্ত্রী মোদী

0

হিমাচল প্রদেশ: প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী শনিবার হিমাচল প্রদেশের রোহতাংয়ে কৌশলগতভাবে গুরুত্বপূর্ণ ‘অটল টানেল’ উদ্বোধন করলেন। এটি বিশ্বের বৃহত্তম টানেল, এই টানেলের দৈর্ঘ্য ৯.০২ কিলোমিটার। উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধানমন্ত্রী মোদীর সাথে প্রতিরক্ষামন্ত্রী রাজনাথ সিংহ এবং হিমাচল প্রদেশের মুখ্যমন্ত্রীও উপস্থিত ছিলেন। অটল টানেলের মাধ্যমে মানালি এবং লেহের মধ্যকার দূরত্ব ৪৬ কিলোমিটার হ্রাস পাবে। এর ফলে যাতায়াতের সময়ও চার থেকে পাঁচ ঘন্টা হ্রাস পাবে। ৯.০২ কিলোমিটার দীর্ঘ টানেলটি সারা বছর ধরে মানালিকে লাহোল স্পিতি উপত্যকার সাথে সংযুক্ত রাখবে।

এর আগে প্রায় ছয় মাস ধরে তুষারপাতের কারণে উপত্যকাটি বাকি অংশ থেকে বিচ্ছিন্ন হয়ে পড়েছিল। আসলে অটল টানেল ছিল প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী ইন্দিরা গান্ধীর স্বপ্ন। ইন্দিরা গান্ধীর সরকারের অধীনে সারা বছর ধরে মানালি-লেহ সংযোগের জন্য একটি রাস্তা নির্মাণ প্রকল্প তৈরি করা হয়েছিল। বাজপেয়ী সরকারের আমলে ২০০২ সালে রোহতাংয়ে একটি টানেল তৈরির প্রকল্প ঘোষণা করা হয়েছিল। ২০১০ সালের জুনে সুড়ঙ্গের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন করেছিলেন ইউপিএ চেয়ারম্যান সোনিয়া গান্ধী।

ঘোড়া-আকৃতির দ্বি-লেনের সুড়ঙ্গটির আট মিটার প্রশস্ত রাস্তা এবং উচ্চতা ৫.৫২৫ মিটার, এর নির্মাণে ব্যয় হয়েছে ৩,৩০০ কোটি টাকা। এই সুরঙ্গটি দেশের সুরক্ষার জন্যও অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ। অটল টানেলের নকশাটি প্রতিদিন তিন হাজার গাড়ি এবং ১৫০০ ট্রাকের জন্য তৈরি করা হয়েছে, ট্রেনগুলির সর্বাধিক গতি প্রতি ঘন্টা ৮০ কিলোমিটার হবে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here