মধুচক্রে জড়িয়ে দেশের গোপন তথ্য ফাঁস পাকের কাছে, গ্রেফতার ভারতীয় সেনা

0

নয়াদিল্লি: ভারতের গোপন তথ্য সংগ্রহের জন্য খুব সুপরিকল্পিতভাবে ফাঁদ পেতেছিল পাকিস্তান। পাকিস্তানের ISI-এর এক গুপ্তচর এক সুন্দরী মহিলা এক ভারতীয়সেনা জওয়ানকে নিজের মোহজালে জড়িয়ে ফাঁসানোর পরিকল্পনা করেছিল। আর পাকিস্তানের পাতা সেই ফাঁদে পা দিয়ে ফেলে এক ভারতীয় জওয়ান দেশের ক্ষতি করে ফেললেন। ভারতীয় সেনা বাহিনীর গুরুত্বপূর্ণ তথ্য সে ইতিমধ্যে তুলে দিয়েছে পাকিস্তানের ওই মহিলা চরের হাতে। দেশের বিরুদ্ধে এই চরবৃত্তি এবং গুরুত্বপূর্ণ তথ্য অন্য দেশের হাতে তুলে দেওয়ার অপরাধে গ্রেপ্তার করা হল আকাশ মেহরিয়া নামে ওই সেনা জওয়ানকে।

২২ বছর বয়সি ওই সেনা জওয়ান আকাশ মেহরিয়াকে গ্রেপ্তার করেছে রাজস্থান পুলিশের গোয়েন্দা বিভাগের আধিকারিকরা। এখনও পর্যন্ত জানা গেছে, রাজস্থানের শিকারের বাসিন্দা ওই আকাশ মেহরিয়া নামে সেনা জওয়ান। বিগত বেশ কিছুদিন ধরেই পাকিস্তানি মহিলা এজেন্টদের সঙ্গে তার যোগাযোগ ছিল। ফেসবুকের মাধ্যমেই তারা যোগাযোগ রাখছিল ভারতীয় জওয়ান আকাশের সঙ্গে। এরপরই আকাশকে ওই মহিলা তার মোহজালে ফাঁসিয়ে ফেলে এবং কাছ থেকে ভারতের একাধিক গুরুত্বপূর্ণ তথ্যও চুরি করে নেয়।

 

সম্প্রতি আকাশ রাজস্থানে শিকারের লক্ষ্মণগড় তেহসিলে নিজের বাড়িতে ফিরেছিলেন। এরপরই তাঁকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য ডাকা হয় রাজস্থান পুলিশের সিআইডি দপ্তরের আধিকারিক সূত্রে। সেখানে দীর্ঘক্ষণ জেরা করা হয় আকাশকে। তারপরই ওই সেনা জওয়ান আকাশ কে গ্রেপ্তার করা হয়। এই প্রসঙ্গে রাজস্থান পুলিশ তরফে জানানো হয়েছে ২০১৮ সালে ভারতীয় সেনায় যোগদানের সুযোগ পেয়েছিলেন আকাশ। ২০১৯ সালে শেষ হয় তাঁর ট্রেনিং। এরপরে তার সিকিমে পোস্টিং হয়। এরপর থেকেই তার ফেসবুকে বেশ কয়েকজন পাকিস্তানি মহিলা এজেন্টের সঙ্গে যোগাযোগ হয়। পাকিস্তানি ওই মহিলারা এজেন্টরা ভুয়ো পরিচয় দিয়ে ফেসবুকে প্রোফাইলগুলি খুলেছিল।

আর সেই ফাঁদেই পড়ে যায় এই ভারতীয় জওয়ান আকাশ। ওই পাক এজেন্ট মহিলাদের সাথে সে কথা বলতে বলতেই ভারতীয় সেনার বেশ কিছু গোপন তথ্যও ফাঁস করে দেয়। ফোনের মাধ্যমেই সে তথ্য পাচার করতেন বলে অভিযোগ, এমনটাই জানা গেছে তদন্তকারী আধিকারিকদের তরফে। তবে এমন ঘটনা এই প্রথম নয়, এর আগেও এরকম ঘটনা একাধিকবার সামনে এসেছে। আর ঠিক এই কারণেই ভারতীয় সেনা জওয়ানদের সোশ্যাল মিডিয়া ব্যবহারে বেশ কিছু নিয়মও জারি করাও হয়েছে।