দেশ জুড়ে বাড়ছে সংক্রমণ, দ্বিতীয় করোনার ঢেউ আছড়ে পড়ার আগেই সতর্কবার্তা মোদীর

0

নয়াদিল্লি: বিগত কয়েকদিন ধরে দেশজুড়ে বাড়ছে করোনার প্রকোপ। সংক্রমণ ক্রমশ বাড়ায় উদ্বিগ্ন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। এই পরিস্থিতিতে বুধবার দেশের সব মুখ্যমন্ত্রীদের সঙ্গে ভার্চুয়াল বৈঠক করেন তিনি। বুধবার সমস্ত রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রীদের সঙ্গে বৈঠক করেন প্রধানমন্ত্রী। তিনি অসাবধানতার বিরুদ্ধে সতর্ক করে বলেন, ‘‌আমাদের দ্রুত উদীয়মান দ্বিতীয় করোনার ওয়েভ বন্ধ করতে হবে এবং তার জন্য বড় ও সিদ্ধান্তমূলক পদক্ষেপ গ্রহণ করুন। করোনার লড়াইয়ের সময় আমরা যে আত্ম-বিশ্বাস অর্জন করেছিলাম তা যেন অতিরিক্ত আত্মবিশ্বাসে পরিণত না হয়ে যায়।’‌

পাশাপাশি, করোনা কেস নিয়ন্ত্রণ করার জম্য মোদী রাজ্যগুলিকে কনট্যাক্ট ট্রেসিং ও মাইক্রো-কনটেইনমেন্ট জোনের ওপর বেশি করে নজর দেওয়ার পরামর্শ দিয়েছেন। প্রশ্ন তোলেন, সমস্যা ঠিক কোথায় হচ্ছে? তা খুঁজে বের করে সমাধান করতে হবে। সমস্যা থেকে জনতাকে মুক্ত করতে হবে’। তাঁর কথায়, ‘প্রতি পরিকল্পনায় রাজ্যের নিজস্ব প্রয়োগ থাকতে হবে। গত বছরই ট্রেনিং হয়ে গিয়েছে। এখন সেই ট্রেনিংকে মাথায় রেখে প্রো-অ্যাক্টিভ হতে হবে। আটকাতে হবে দ্বিতীয় করোনার ঢেউ। দরকার পড়লে পুরোনো সুরক্ষাবিধি চালু করুন রাজ্যে রাজ্যে’।

বৈঠক শেষে প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘কেন করোনা টেস্ট কম হচ্ছে, কেন পর্যাপ্ত টিকাকরণের লক্ষ্যে পৌঁছানো সম্ভব হচ্ছে না। সেদিকে নজর দিন। আরটি-পিসিআর টেস্টের সংখ্যা বাড়াতে হবে। পাশাপাশি তিনি বলেন, ‘গত বছর পরিবহণ বন্ধ করে দেওয়ার কারণে রক্ষা পেয়েছিল গ্রামগুলি। কিন্তু এখন পরিবহণ চালু হওয়ার কারণে শহরতলি ও গ্রাম গুলিতে করোনা পরীক্ষা ও টিকাকরণে জোর দিতে হবে। মনে রাখবেন, টিয়ার ৩-তে করোনা দাপট দেখাতে শুরু করলে পরিস্থিতি হাতের বাইরে চলে যেতে পারে’।