করোনার থাবা নির্বাচন কমিশনে, আক্রান্ত মুখ্য নির্বাচন কমিশনার সুশীল চন্দ্র ও নির্বাচন কমিশনার রাজীব কুমারও!

0

নয়াদিল্লি: দেশজুড়ে মারণ ভাইরাসের থাবা জাঁকিয়ে বসেছে। উদ্বেগজনক পরিস্থিতি তৈরি করে করোনা সংক্রমণ ক্রমে ঊর্ধ্বমুখী। এহেন ভোটের মরসুমে বাংলার রাজনৈতিক সভা-সমাবেশ গুলি যে করোনার অন্যতম ‘হটস্পট’ হয়ে উঠতে পারে, তা আন্দাজ করেই ইতিমধ্যে সব রাজনৈতিক দলই তাদের নির্বাচনী প্রচারে কাটছাঁট করেছে। নির্বাচন কমিশনের তরফেও নির্দেশ দেওয়া হয়েছে সন্ধ্যা ৭ টা থেকে রাত ১০ টা পর্যন্ত কোনও রাজনৈতিক সভা-মছিল নয়।

করোনার সংক্রমণ রেয়াত করছে না কাউকেই। এই অতিমারী আবহে নির্বাচনের দায়িত্বে থাকা মুখ্য নির্বাচনী আধিকারিকও বাদ গেলেন না করোনার সংক্রমণ থেকে। মঙ্গলবারই জানা যায় মারণ ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন মুখ্য নির্বাচন কমিশনার সুশীল চন্দ্র। শুধু তিনিই নন, করোনার কবলে পড়েছেন নির্বাচন কমিশনার রাজীব কুমারও। প্রসঙ্গত, বাংলায় বিধানসভা নির্বাচন চলাকালীনই গত ১৩ এপ্রিল সুনীল আরোরার উত্তরসূরি হিসেবে মুখ্য নির্বাচন কমিশনারের পদ গ্রহণ করেছেন সুশীল চন্দ্র। জানা গিয়েছে, সেই সময়ই তাঁর শরীরে ভাইরাস বাসা বেঁধেছিল। যে কারণে বাড়িতে বসেই নিজের দায়িত্ব বুঝে নিয়েছিলেন তিনি।

মঙ্গলবার নির্বাচন কমিশনের তরফে সরকারিভাবে জানানো হল, সুনীল চন্দ্রের করোনা আক্রান্ত হওয়ার খবর। একইসঙ্গে এই ভাইরাসে সংক্রমিত নির্বাচন কমিশনার রাজীব কুমারও। দু’জনই বাড়ি বসে কাজ করছেন। বঙ্গে এখনও বাকি তিন দফার ভোট। ২২, ২৬ এবং ২৯ তারিখ হবে নির্বাচন। এমন পরিস্থিতিতে দুই গুরুত্বপূর্ণ পদে থাকা ব্যক্তি করোনা আক্রান্ত হওয়ায় স্বাভাবিকভাবেই বাড়ল উদ্বেগ।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here