হলদিয়ার জনসভা থেকেও বিজেপির মিথ্যাচার ও টাকায় ভোট লুটের প্রতিরোধ করতে আহ্বান মমতার

0

হলদিয়া: আটচল্লিশ ঘন্টা আগেই প্রার্থী বীরবাহার সমর্থনে ঝাড়গ্রামের সভা ও খগেন্দ্রনাথ মাহাতোর সমর্থনে গোপীবল্লভপুরের সভা থেকে বিজেপির বিরুদ্ধে মিথ্যে কথা আর টাকার বিনিময়ে ভোট লুটের অভিযোগ এনেছিলেন তৃণমূল সুপ্রিমো মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। সেই নিয়ে রাজ্য বাসীকে সেই সতর্কও করে দিয়েছিলেন তিনি। এবার হলদি নদীর পারে হলদিয়ার জনসভা থেকে একই সুরে বিজেপির মিথ্যা প্রচারের বিরুদ্ধে জনতাকে প্রতিরোধ গড়ে তোলার আহ্বান জানালেন। শনিবার পায়ে ব্যান্ডেজ নিয়ে হুইল চেয়ারে করেই হলদিয়ায় প্রচারে আসেন ঘাসফুল স্ট্রাইকার। চেনা ছন্দে বিজেপিকে তীব্র আক্রমণ করেন। যন্ত্র, কষ্ট নিয়ে ঘরে চুপ করে বসে থাকলে বিজেপি সব ঘরবাড়ি লুঠ করে নেবে। দখল করে নিয়ে তাড়িয়ে দেবে। এদিন সেই বার্তাই দিলেন মমতা। মমতার কথায়, “আমি যদি ঘরে বসে থাকি, তা হলে বিজেপি এসে আপনাদের তাড়িয়ে দেবে। ঘরবাড়ি লুঠ করে নেবে। বাংলাকে দখল করে নেবে ওই গুন্ডারা।” জনসভা থেকে বার বারই তাঁকে অভিযোগ তুলতে শোনা গিয়েছে যে, তিনি অনেক মার খেয়েছেন। হাত ভেঙে দেওয়া হয়েছে, কোমরে চোট রয়েছে। বাকি ছিল পা। সেটাও আহত করে দেওয়া হল। কিন্তু তিনি চুপ করে বসে থাকার লোক নন বলেও হুঁশিয়ারি দিয়েছেন তৃণমূলনেত্রী। মমতা বলেন, “আপনারা অনেক কষ্ট করে এসেছেন। দূর দূর থেকে এসেছেন। আপনাদের পাগুলোতে প্রণাম জানাই।” তাঁরও কষ্ট হয়েছে। তাঁকে মাথায় মারা হয়েছে। অস্ত্রোপচার হয়েছে। দুটো হাত ভেঙে দেওয়া হয়েছে। চোখে অস্ত্রোপচার করতে হয়েছে বলেও জানান মমতা। এর পরই বলেন, “পা-টা বাকি ছিল, সেটাকেও আঘাত করা হল।”

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here