নারী কল্যানে মমতাকে টেক্কা দিতে বিজেপির ইস্তাহারে একাধিক চমক, জানুন বিজেপি ক্ষমতায় এলে কি কি পাবেন মহিলারা

0

কলকাতা: নীল বাড়িতে বসে বাংলা শাসন করার জন্য মরিয়া গেরুয়া শিবির। নির্বাচনী দিন ঘোষণা করার পর থেকেই রাজ্যে সভার পরিমাণ বেড়েছে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী ও স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহের। বাংলার মানুষের মণ পেতে দু হাত উজার করে বিজেপি প্রকাশ করেছে ইস্তাহার। সেখানে বেশী প্রাধান্য দেওয়া হয়েছে মহিলাদের উপর। সেই সঙ্গে সোনার বাংলা তৈরি করার জন্য একাধিক সংকল্পের কথা ইস্তাহারে জানিয়েছে বিজেপি।

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ রবিবার ইস্তাহার প্রকাশ করে জানিয়েছেন, বিজেপি বাংলায় ক্ষমতায় এলে কেজি থেকে পিজি পর্যন্ত সম্পূর্ণ বিনামূল্যে মেয়েদের শিক্ষা দেওয়া হবে। ১৮ বছর পূর্ণ হলে ব্যঙ্ক অ্যাকাউন্টে দেওয়া হবে ২ লক্ষ করে টাকা। সেই সঙ্গে সরকারি বাসে সম্পূর্ণভাবে নিখরচায় যাত্রা করতে পারবেন মহিলারা। মমতাকে টেক্কা দিয়ে দলিত এবং আদিবাসী ছাত্রীদের জন্য ‘বালিকা আলো’ যোজনা নামের বিশেষ প্রকল্প প্রণয়নের প্রতিশ্রুতি দিয়েছে বিজেপি। সেখানে বলা হয়েছে, দলিত-আদিবাসী ছাত্রীদের ষষ্ঠ শ্রেণিতে ৩ হাজার, নবম শ্রেণিতে ৫ হাজার, একাদশ শ্রেণিতে ৭ হাজার এবং দ্বাদশ শ্রেণি পাশ করলে ১০ হাজার টাকা করে আর্থিক সাহায্য দেওয়া হবে। একাহ্নেই শেষ নয় মহিলারা সরকারি চাকরিতে ৩৩ শতাংশ সংরক্ষণ পাবেন যদি বিজেপি বাংলায় ক্ষমতায় আসে। পাশাপাশি বিশেষ নজর দেওয়া হবে বঙ্গের নারী সুরক্ষার ক্ষেত্রে।

বিজেপির প্রয়াসিত ইস্তাহারে আরও বলা হয়েছে বিজেপির হাতে রাজ্যের শাসন ভার এলে বঙ্গে ৯টি মহিলা ব্যাটেলিয়ন এবং ৩টি রিজার্ভ ব্যাটেলিয়ন তৈরি করা হবে। সেই সঙ্গে উল্লেখ করা হয়েছে বিধবা ভাতা এক হাজার নয় বরং ৩ হাজার করে দেবে বিজেপি সরকার। বিজেপির তাঁদের ইস্তাহারে মহিলাদের প্রতি বিশেষ নজর দিয়েছে মূলত বঙ্গের মুখ্যমন্ত্রীর প্রণীত প্রকল্পগুলিকে টেক্কা দেওয়ার জন্য। কারণ রাজ্যের নারীদের কল্যানে মমতার চালু করা প্রকল্পগুলি বেশ জোরালো প্রভাব ফেলেছে বঙ্গে সেই সঙ্গে কন্যাশ্রী, রূপশ্রীর মতো প্রকল্পগুলি আন্তর্জাতিক স্তরে প্রশংসিত হয়েছে। তাই নারী কল্যানে বঙ্গে তৃণমূলের জমি বেশ অনেকটাই শক্ত। সেই জমি দখল নিতেই বিজেপির ইস্তাহারে মহিলাদের জন্য এত কিছু বলা হয়েছে বলেই মনে করছেন রাজনৈতিক মহল।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here