“ক্ষমতায় এলে ভগবানপুর মোদীপুর হবে”, ভগবানপুরের সভা থেকে বিজেপিকে তীব্র আক্রমণ অভিষেকের

0

ভগবানপুরঃ রাজ্যে ভোট শুরু এই সপ্তাহেই। তার আগে জোরকদমে প্রচারপর্ব চালাচ্ছে রাজনৈতিক দলগুলি। নির্বাচনের আগে বুধবার পূর্ব মেদিনীপুর জেলায় পরপর দুটি জনসভা করলেন তৃণমূলের সভাপতি অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়। প্রথম জনসভা করেন ভগবানপুরে। পরে নন্দীগ্রামে নিজের দ্বিতীয় জনসভা করেন তিনি। দুটি সভা থেকেই বিজেপির বিরুদ্ধে তীব্র আক্রমণ শানান অভিষেক।

বুধবার বেলা আড়াইটা নাগাদ ভগবানপুরের সভায় বক্তব্য রাখেন অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়। প্রধানমন্ত্রীকে উদ্দেশ্যে করে তিনি বলেন, ‘প্রধানমন্ত্রী প্রম্পটার দেখে দেখে বাংলা পড়েন।’ পাশাপাশি তিনি বলেন, ” বাংলার মানুষ দিল্লির কাছে মাথা নত করতে চান না। এর আগে মোদী বলেছিল সবার অ্যাকাউন্টে ৫ লাখ করে টাকা দেবেন। কেউ পাননি সেই টাকা।”

কেন্দ্রীয় সরকারকে আক্রমণ করে অভিষেক বলেন, “গরীবরা আরও গরীব হয়েছে আর বড়লোকরা আরও বড়লোক হয়েছে। ওরা দেশের অর্থনীতি ধ্বংস করছে। ” জনসভার মানুষদের উদ্দেশ্যে প্রশ্ন ছুঁড়ে অভিষেক বলেন, “নোটবন্দি করে কালো টাকা ধ্বংস করবে বলেছিল। নন্দীগ্রামের কোনও গরীব বড়লোক হয়েছেন? বরং বড়লোকদের টাকা বেড়েছে। বহিরাগতদের বাংলায় ঠাঁই নেই বলে সরব হন অভিষেক। ‘বাংলা নিজের মেয়েকেই চায়’ বলে আওয়াজ তোলেন অভিষেক।

জনসভা থেকে পশ্চিমবঙ্গকে বিজেপির ‘সোনার বাংলা’ বানানোর পরিকল্পনাকেও কটাক্ষ করেন যুব তৃণমূলের সভাপতি। নন্দীগ্রামের মঞ্চ থেকে তিনি প্রশ্ন ছোঁড়েন, “৭ বছর কেন্দ্রে থেকে সোনার ভারতবর্ষ হল না কেন? সোনার গুজরাত হল না কেন? সোনার ছত্তিশগড় হল না কেন?” তিনি বলেন, “গুজরাতের মোতেরায় সর্দার বল্লভভাই প্যাটেলের নাম পরিবর্তন করে মোদীর নামে হয়ে গিয়েছে। ক্ষমতায় এলে ভগবানপুর মোদীপুর হবে।” এছাড়াও দুই জনসভা থেকেই বিজেপির ইস্তাহারকেও তীব্র কটাক্ষ করেন অভিষেক।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here