কোম্পানির ডিরেক্টর পদে নেই ইস্টবেঙ্গল কর্তারা, সমস্যার জট কাটাতে এগিয়ে এলেন ক্রীড়ামন্ত্রী

0

কলকাতা: বহু প্রতীক্ষার অবসান হয়ে ভারতবর্ষের দ্বিতীয় বৃহত্তম সিমেন্ট কোম্পানি শ্রী সিমেন্টকে সাথে নিয়ে নতুন পথচলা শুরু করেছে ইস্টবেঙ্গল ক্লাব। কিন্তু চুক্তি হওয়া সত্ত্বেও ইস্টবেঙ্গল এবং শ্রী সিমেন্টের কর্তাদের আলোচনায় ঠিক হয়েছে নতুন কোম্পানির নাম হবে ‘শ্রী সিমেন্ট ফাউন্ডেশন’। কোম্পানির ডিরেক্টরেও নেই ক্লাবের কারোর নাম। এখানেই সমস্যা দেখা দিয়েছে ক্লাবের তরফ থেকে।

প্রশ্ন উঠেছে যে ইস্টবেঙ্গল ক্লাবের পদাধিকারিদের কেন ডিরেক্টর পদে রাখা হবে না? ক্লাব সূত্রে জানা গিয়েছে, ডিরেক্টর হিসেবে নাম পাঠানো হয়েছিল দেবব্রত সরকার এবং সৈকত গঙ্গোপাধ্যায়ের। তবে কোম্পানির পছন্দ ক্লাব প্রেসিডেন্ট পণব দাশগুপ্তকে। এদিকে শ্রী সিমেন্টের হাতে রয়েছে ইস্টবেঙ্গল ক্লাবের সবরকমের স্বত্ত্ব, শুধু ফুটবল নয়। এই সব জট কাটাতে চাইছেন রাজ্যের ক্রীড়ামন্ত্রী অরূপ বিশ্বাস। এই বিষয়েই জরুরি বৈঠকে বসবেন ক্রীড়ামন্ত্রী।

আগের স্পনসর কোয়েসের কথা ভেবেই কোম্পানি দেবব্রত সরকারের নাম ডিরেক্টর পদে রাখতে চাইছে না। তবে ইস্টবেঙ্গল কর্তা ও ইনভেস্টরের সঙ্গে বৈঠক করে ক্রীড়ামন্ত্রী জট কাটাবে বলেই মনে করা হচ্ছে। বলা বাহুল্য, নবান্নে সাংবাদিক বৈঠকে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের উপস্থিতিতে শ্রী সিমেন্ট ও ইস্টবেঙ্গল যুগলবন্দীতে পড়েছিল সরকারি শিলমোহর। পাশাপাশি আসন্ন ইন্ডিয়ান সুপার লিগে আবেদন করার যাবতীয় প্রক্রিয়া শুরু করার কথা জানিয়েছিলেন ক্লাবের শীর্ষকর্তা দেবব্রত সরকার।