মহামেডান স্পোর্টিংয়ের সোনালী ইতিহাস ফিরিয়ে আনতে মরিয়া কোচ ইয়ান ল

0

কল্যাণী : আসন্ন আইলিগ দ্বিতীয় ডিভিশনে অন্যতম হট ফেভারিট মহামেডান স্পোর্টিং। দীর্ঘ ছয় মরশুমের অন্ধকার কাটিয়ে আইলিগের মূলপর্বে ফিরে আসতে মরিয়া মহামেডান, আর সেই স্বপ্নপূরণের সারথি হয়েছেন ইয়ান ল। কিভাবে মহামেডানকে নিজেদের সোনালী ইতিহাস ফিরিয়ে দেবেন তিনি, সাক্ষাৎকারে তা স্পষ্ট করে দিলেন ইয়ান।

অল ইন্ডিয়া ফুটবল ফেডারেশন মারফত একটি বিশেষ সাক্ষাৎকারে কোচ ইয়ান ল আশাবাদী সাদা-কালো ব্রিগেডকে নিয়ে। তিনি বলেন, “আমাদের প্রথম লক্ষ্য হল আইলিগে ওঠা। আমাদের খুবই ভালো টিম রয়েছে, যা আমাদের দীর্ঘসময় ধরে ছিল না। আমরা জানি এই দ্বিতীয় ডিভিশনের টুর্নামেন্ট কতটা প্রতিদ্বন্দ্বিতামূলক হয়। কিন্তু মহামেডান স্পোর্টিং পুরোদমে তৈরি থাকবে।”

এই মুহুর্তে কল্যাণীতে আবাসিক শিবিরে রয়েছে গোটা মহামেডান শিবির। সেখানকার পরিবেশ ও পরিস্থিতি নিয়ে ইয়ান জানান, “শিবিরে প্রায় তিন সপ্তাহ হয়ে গেল আর খেলোয়াড়রা পরিস্থিতির সাথে যথেষ্ট ইতিবাচক সাড়া দিয়েছে। ছেলেরা প্রচন্ড পরিশ্রম করছে এবং আমি খুশি ওদের এই সাড়াতে। ক্লাবের নতুন ম্যানেজমেন্টের তরফ থেকে সমস্ত সহযোগিতা পাচ্ছি, আর খেলোয়াড়দের মধ্যে নতুন ধরণের শক্তি ফুটে উঠেছে।”

খেলোয়াড়দের কিভাবে তৈরি করা হচ্ছে, সেই নিয়ে সাদা-কালো ব্রিগেডের কোচ বলেন, “আমরা খেলোয়াড়দের মানসিক জোর ও দলগত জোটবন্ধনের উপর কাজ করছি যাতে তারা একে অপরের সাথে সমস্ত ক্ষেত্রে যোগাযোগ করতে পারে।”

মহামেডানে আসা নতুন খেলোয়াড়দের নিয়ে সন্তুষ্ট ইয়ান। তিনি জানান, “আমি ক্লাবে যোগ দেওয়ার পর চেয়েছিলাম তাদের যারা আমার খেলার ধরণের সাথে মিল খেয়ে যায়, আর দলকে আইলিগে এগিয়ে নিয়ে যেতে পারে। ক্লাব ম্যানেজমেন্ট আমার সমস্ত সিদ্ধান্ত সমর্থন করেছে। মাঠ ও মাঠের বাইরে এই নতুন ম্যানেজমেন্ট অনেক কাজ করেছে। আমরা একাধিক গুরুত্বপূর্ণ খেলোয়াড়কে নিয়েছি এবং বেশ কিছু খেলোয়াড়দের দীর্ঘ অভিজ্ঞতা রয়েছে। দলের মধ্যে জায়গা করে নিতে একটা সুস্থ প্রতিযোগিতা রয়েছে আর প্রতিটি খেলোয়াড় নিজেদের জায়গা করে নিতে মরিয়া।”

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here