ঝামেলা মিটল ইস্টবেঙ্গল ও শ্রী সিমেন্টের, আইনি প্রক্রিয়া সহ দলগঠনের কাজ চলছে জোরকদমে

0

কলকাতা : জটিলতা ছিল, ছিল অভিমান-ক্ষোভও। কিন্তু সেসবকে দূরে সরিয়ে রেখে এবার সমঝোতার পথেই ইস্টবেঙ্গল কর্তারা। সোমবার বিকেল থেকে লাগাতার ইনভেস্টর শ্রী সিমেন্টের প্রতিনিধিদের সাথে ভার্চুয়াল বৈঠক এবং ক্লাবে রাজ্যের অ্যাডভোকেট জেনারেলের আগমণের জেরে উত্তপ্ত পরিস্থিতিকে সামাল দিতে পেরেছে ইস্টবেঙ্গল কর্তারা।

ক্লাব সূত্রে খবর, অ্যাডভোকেট জেনারেলের শারীরিক উপস্থিতিতে ভার্চুয়াল বৈঠকে ইনভেস্টররা বেশ কিছু শর্ত তুলে ধরেন ক্লাবকর্তাদের প্রতি। সেগুলি হল,

  • ইস্টবেঙ্গলের EGM-এ ওঠা ইনভেস্টরের শর্তগুলি নিয়ে যে বিরোধীতা উঠেছিল, সেই নিয়ে যাতে পরবর্তীকালে কোনও বিরোধীতা বা আইনি পদক্ষেপ না নেওয়া হয়, সেই নিয়ে ক্লাবকে বন্ডে মুচলেকা দিতে হবে।
  • ক্লাবের EGM-এ প্রশ্ন তোলা প্রত্যেক সদস্যদের ব্যক্তিগত ভাবে বন্ডে মুচলেকা দিতে হবে ভবিষ্যতে আর কোন প্রশ্ন তোলা যাবে না।
  • ক্লাবের সদস্যপদ বাছাইয়ের দায়িত্ব থাকবে পুরোপুরি শ্রী সিমেন্টের অধীনে।
  • বিগত পাঁচ বছরের অডিটের সম্পূর্ণ হিসাব নিকাশ আগামী দু’দিনের মধ্যে ইনভেস্টর গোষ্ঠীর হাতে তুলে দিতে হবে।
  • ইস্টবেঙ্গলের দেনার পরিষ্কার হিসাব ইনভেস্টর গোষ্ঠীর হাতে তুলে দিতে হবে এবং মুচলেকা দিতে হবে, হিসাবের বাইরের কোনও দেনা ইনভেস্টর গোষ্ঠীর দ্বায়িত্ব নয়, ইস্টবেঙ্গলের পরিচালন সমিতিকে সেই দেনা বহন করতে হবে।

ক্লাব সূত্রে খবর, এই সকল শর্তই মানতে রাজি হয়েছেন লাল-হলুদ কর্তারা। রাজ্য সরকারের প্রতিনিধি হিসেবে আসা অ্যাডভোকেট জেনারেল সামনে থাকায় খুব বেশি ঝামেলা বাড়াতে চাননি তারা। এদিকে ইনভেস্টর চলে যাওয়ার ইঙ্গিত দেওয়ায় তীরে এসে তরী ডোবার মত পরিস্থিতি তৈরি করতে চাননি কর্তারা। ফলে সমস্ত শর্তগুলিকে মেনে নিয়ে নয়া টার্ম শিটে সই করে তা আজ অর্থাৎ মঙ্গলবার সকালের মধ্যে পাঠিয়ে দেওয়া হবে। এর ফলে আইনি প্রক্রিয়া দ্রুত শুরু করা হবে।

এদিকে দলগঠনের কাজ ও খেলোয়াড়দের সাথে চুক্তির কাজও এগিয়ে রাখছে ইস্টবেঙ্গল এফসি কর্তারা ও ইনভেস্টর। বিদেশীদের সাথে আলোচনা যেমন হচ্ছে, তেমনি দেশীয় খেলোয়াড়দের নিয়েও চলছে তুমুল তোড়জোড়।

সবকিছু ঠিকঠাক থাকলে, এতদিনে হয়ত একাধিক বড় ঘোষণা পেয়েই যেতেন ইস্টবেঙ্গল সমর্থকরা। কিন্তু যত গন্ডগোল বাঁধল গত ২৯ সেপ্টেম্বর ইস্টবেঙ্গল ক্লাবের এক্সট্রাঅর্ডিনারি জেনারেল মিটিংয়ে কিছু প্রাচীনপন্থী ও স্বার্থপর সদস্যদের জেরে ঘটল এমন ঝামেলা।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here