“দেশীয় কোচদের সুযোগ দিন”, নর্থইস্ট ইউনাইটেডকে প্লে-অফে পৌঁছে মন্তব্য কোচ খালিদ জামিলের

0

গোয়া: আইলিগ জয়ী কোচ খালিদ জামিলের অধীনে থাকা নর্থইস্ট ইউনাইটেড তারকাখচিত এটিকে-মোহনবাগানকে মাত দিয়ে প্লে অফে যাওয়ার লড়াই টিকিয়ে রেখেছিল। নর্থইস্ট ইউনাইটেডের ক্লাবকর্তারা জহুরি হয়ে সঠিক সময়ে হীরে চিনে নিয়েছেন। একের পর এক ম্যাচে ভালো প্রদর্শন না করতে পেরে বিদেশী কোচের জায়গায় বসিয়ে দেওয়া হয় খালিদ জামিলকে। আগে যদিও তিনি সহকারী কোচের পদে ছিলেন। আর এই সুবর্ণ সুযোগকে খালিদ জামিল কাজে লাগিয়ে বুঝিয়ে দিলেন দেশী কোচরাও পারে। নর্থইস্ট ইউনাইটেড পৌঁছে গেল প্লে-অফে। খালিদ জামিলই বাজিমাত করলেন, যা এতদিন কোনও ভারতীয় কোচ করতে পারেনি।

এই বিষয়ে খালিদ জামিলের কথায়, “যে কোনও ভারতীয় কোচ সাফল্য পেলে সত্যিই খুব ভালো লাগে। আলাদা একটা অনুভুতি হয়। মানছি দলটাকে শেষ চারে পৌঁছে দিয়েছি, তবে এখনও অনেক দূর যেতে হবে। এই দলটাকে নিয়ে অনেকটা পথ অতিক্রম করতে পেরেছি। আমি স্পেশ্যাল কিছু করিনি। যা সব ঘটেছে সবই ছেলেদের জন্য। সম্পূর্ণ কৃতিত্বই ছেলেদের। তবে নর্থইস্টের ছেলেরা প্রচণ্ড পরিশ্রমী। অবিরাম খেটে যেতে পারে। দলের জন্য একশো শতাংশ দিতে সকলে তৈরি থাকে।”

সেই সঙ্গে তিনি দেশীয় কোচদের হয়ে বলেছেন, “বিদেশিরা নিঃসন্দেহে ভারতীয় কোচদের থেকে ভালো। তবে দেশীয় কোচদের সুযোগ দিতে হবে। তাহলেই তো তারা প্রমাণ করতে পারবে। আমাকে সাময়িক সময়ের জন্য কোচ করা হয়েছে। এখন থেকে এসব বলার কোনও মানে হয় না। আগামী বছরের জন্য ধৈর্য্য ধরুন। দেখতে হবে ভালো কিছু করতে পারি কিনা। তাহলেই তো দেশীয় কোচ হিসাবে প্রমাণ দিতে পারব।”