লাল-হলুদ কর্তাদের চিঠি দেবে ইনভেস্টর, তারপরই চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত

0

 

কলকাতা: ইস্টবেঙ্গলে ক্লাব-ইনভেস্টরের সম্পর্কের জট অব্যাহত। সবচেয়ে বড় আলোচনার বিষয় ইনভেস্টর সংস্থা শ্রী সিমেন্টের সঙ্গে চূড়ান্ত চুক্তি স্বাক্ষরিত হওয়া। ক্লাবকর্তারা কোনওমতেই ফাইনাল টার্মশিট সই করতে আগ্রহী নয়। চুক্তিপত্র স্বাক্ষরিত না হওয়ায় বোর্ড গঠন হয়ে ওঠেনি। এরই মধ্যে খুব শীঘ্রই ইনভেস্টর সংস্থা শ্রী সিমেন্টের তরফে ইস্টবেঙ্গল ক্লাবকর্তাদের চিঠি পাঠানো হতে পারে। এরপরই চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেবেন শ্রী সিমেন্ট কর্তারা। গত সেপ্টেম্বরে ইস্টবেঙ্গল ক্লাবের ইনভেস্টর হিসেবে আত্মপ্রকাশ করে শ্রী সিমেন্ট। এরপরই দল আইএসএল টুর্নামেন্টে প্রবেশ করে।

কিন্তু আইএসএলে খারাপ ফর্ম এবং তা শেষ হতেই লাল-হলুদ শিবিরে ইনভেস্টরের সঙ্গে বিচ্ছেদের কালো মেঘ ঘনিয়ে এসেছিল লাল-হলুদ শিবিরে। সেই নিয়েই ইস্টবেঙ্গল ক্লাবের কার্যকরী কমিটির সদস্যরা আলোচনায় বসেছিলেন। প্রায় তিন ঘন্টার বেশি আলোচনা পর্ব চলে। জানা গিয়েছিল, মার্চের শেষ সপ্তাহেই এর ফয়সালা হতে পারে, কারণ সেই সময় কলকাতায় ফিরছেন শ্রী সিমেন্টের কর্ণধার হরিমোহন বাঙ্গুর। ক্লাবের বৈঠকের পর লাল-হলুদের শীর্ষকর্তা দেবব্রত সরকার জানিয়েছেন, “গত ২ ডিসেম্বর ক্লাবের অবস্থায় জানিয়ে চিঠি দেওয়া হয়েছিল তার উত্তর মেলেনি।”

এই বিষয়ে এসসি ইস্টবেঙ্গলের অন্যতম কর্তা শ্রেণিক শেঠ বললেন, “অক্টোবর মাসে আমরা চুক্তিপত্র পাঠিয়েছিলাম ইস্টবেঙ্গলকে। এখনও পর্যন্ত তা সই করে পাঠায়নি ওরা। কিছু জানানোও হয়নি। তাই শেষ বারের মতো চিঠি পাঠানোর কথা ভাবছি। জানতে চাওয়া হবে, ইস্টবেঙ্গল কর্তারা ঠিক কী চাইছেন।” এক কর্তার দাবি, “চূড়ান্ত চুক্তিতে সই করতে যত দেরি করবেন ইস্টবেঙ্গলের কর্তারা, তত আমরা পিছিয়ে পড়ব আগামী মরসুমের দল গড়ার ক্ষেত্রে। কারণ আমরা যে ফুটবলারদের নেওয়ার কথা ভেবেছি, তাঁরা খুব বেশি দিন অপেক্ষা করবেন না। ভাল মানের বিদেশি ফুটবলারও পাওয়া যাবে না।” ক্লাবকর্তারা সবুজ সঙ্কেত দিলেই হরিমোহন বাঙ্গুর ফাইনাল চুক্তি ঘোষণা করা হবে। অর্থাৎ পুরো বিষয়টাই ক্লাবকর্তাদের হাতে রয়েছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here