ভেঙে পড়ল উত্তরবঙ্গের ঐতিহ্যশালী সেতু, প্রশ্ন উঠল প্রশাসনের ভূমিকা নিয়ে

0

সুদীপ ব্যানার্জী, কোচবিহার : আচমকাই ভেঙে পড়লো কোচবিহারের কলাভাঙা ব্রিজ। দীর্ঘ ৩৫ বছরের পুরনো এই ব্রিজের ছিলনা কোনো রক্ষণাবেক্ষণ। উঠছে প্রশ্ন প্রশাসনের ভুমিকা নিয়েও।

দীর্ঘদিন ধরে সংস্কারের অভাবে পড়েছিল এই ব্রিজটি। সেইসাথে ব্রিজের সম্মুখে ছিল সতর্কীকরণ বোর্ড। সেই বোর্ডকে তোয়াক্কা না করেই এদিন এই ব্রিজের ওপরে ওঠে পাথরবোঝাই একাধিক ডাম্পার। শুক্রবার সকালে প্রথম ডাম্পারটি পার হয়ে গেলেও দ্বিতীয় ডাম্পার সেতুতে এসে পৌঁছলে ডাম্পারসহ ব্রিজটি ভেঙে পড়ে। এখনো পর্যন্ত জলের নিচে চাপা পড়ে রয়েছে পাথরবোঝাই ডাম্পারটি।

যদিও ভাগ্যক্রমে হতাহতের কোনো ঘটনা ঘটেনি এই দুর্ঘটনার জেরে। কোনো ক্রমে প্রানে বেঁচে যান ডাম্পারের চালক। সাধারন বাসিন্দাদের অভিযোগ দীর্ঘ ৩৫ বছরের পুরনো এই ব্রিজ। দীর্ঘদিন ধরে স্থানীয় প্রশাসনের নজরদারির অভাবের জেরে এই ঘটনাটি ঘটেছে।

স্থানীয় প্রশাসন সূত্রে জানা গিয়েছে এই ব্রিজের পাশ দিয়েই একটি অস্থায়ী রূপে বাঁশের সাঁকো তৈরি করা হবে পরবর্তীতে তোলা হবে জলের নীচে পরে যাওয়া ডাম্পারটিকে। তবে এই ব্রীজটি ভেঙে পড়ায় সমস্যায় পড়েছে নদী পাশ্ববর্তী এলাকার প্রায় ৫ হাজার গ্রামবাসী। এই মুহূর্তে গ্রামবাসীরা ভেলা করে যাতায়াত করছে।

স্থানীয় গ্রামবাসী নারায়ণ বর্মন বলেন দীর্ঘ দিন থেকেই ব্রিজটি ভগ্ন দশায় ছিল কিন্তু প্রশাসনের থেকে কোনো রক্ষনাবেক্ষন ছিল না। আচমকাই আজকে ব্রিজটি ভেঙে পড়ার ফলে প্রচুর মানুষের যাতায়াতের অসুবিধায় পড়েছে।