পুলিশকে দিয়ে শুধু তৃণমূলের কাজ করায় মমতা সরকার: বড়সড় আক্রমণ অধীরের

0

কলকাতা: বাংলায় জঙ্গিদের আগমণকে নিয়ে সুর চড়ালেন কংগ্রেস নেতা ও রাজ্যের প্রদেশ কংগ্রেস সভাপতি অধীর রঞ্জন চৌধুরি। কেন্দ্র ও রাজ্য সরকারের অবহেলার কথা তুলে ধরলেন তিনি তাঁর বক্তব্যের মাধ্যমে। রাজ্যের শাসক দল তৃণমূলকে আবারও আক্রমণ করলেন তিনি। সেই সঙ্গে কেন্দ্র সরকারকেও ছেড়ে কথা বলেননি তিনি। নিজের জেলা নিয়ে উদ্বেগ প্রকাশ করে অধীর বলেছেন, “এর আগেও বাংলায় জঙ্গি কার্যকলাপের ঘটনায় মুর্শিদাবাদের নাম উঠে এসেছে। ভারতের অন্যত্র জঙ্গি নাশকতার ঘটনাতেও মুর্শিদাবাদের নাম উঠেছে।”

তিনি আরও বলেছেন, “যেমন কিছু দিন আগে বুদ্ধগয়ায় বিস্ফোরণের ঘটনার সঙ্গে মুর্শিদাবাদের নাম জড়িয়েছিল। এ সব কম চিন্তার নয়। তাছাড়া এই জেলা বাংলাদেশের সীমান্তবর্তী। বাংলাদেশের জামাত উল মুজাহিদের শাখা প্রশাখা এখানে ছড়িয়ে রয়েছে বলে জানা গিয়েছে।” শনিবার আল কায়দা জঙ্গি সংগঠনের সঙ্গে যুক্ত সন্দেহে মুর্শিদাবাদ থেকে ৬ যুবককে গ্রেফতার করা হয়। সেই ঘটনার জেরেই অধীরের এই বক্তব্য।

তিনি আরও বলেন, “বাংলায় পুলিশ তৃণমূলকে বাঁচাতে ব্যর্থ। জঙ্গি নেটওয়ার্ক খোঁজার সময় কই! ন্যূনতম গোয়েন্দা পরিকাঠামো কাজ করলে বাংলায় এ ধরনের কার্যকলাপ চলতে পারে না। আল কায়দার মতো জঙ্গি সংগঠনের শিকর বাকড় যদি বাংলায় গজাতে শুরু করে তা হলে বুঝতে হবে পরিস্থিতি ভয়ঙ্কর, ভয়াবহ। মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় সরকার আসলে পুলিশ দিয়ে দলের সাংগঠনিক কাজ করায়। কোন বিরোধী নেতাকে মিথ্যা মামলায় ফাঁসাতে হবে, কাকে চমকে তৃণমূলে আনতে হবে এসবই তাদের এখন কাজ হয়ে দাঁড়িয়েছে।”