নন্দীগ্রামে মুশকিলে শিশির অধিকারী: সমর্থন করবেন কাকে! মাননীয়া নাকি ছেলে শুভেন্দু

0

কলকাতা: শাসক দল তৃণমূল ও অধিকারী পরিবারের মধ্যে ফাটল আগেই ধরেছিল। তারপরই দিঘা-শংকরপুর উন্নয়ন পর্ষদের চেয়ারম্যান পদ ও পূর্ব মেদিনীপুরের তৃণমূলের জেলা সভাপতির পদ থেকে সরিয়ে দেওয়া হয় শিশির অধিকারীকে। এরই মধ্যে তৃণমূল সুপ্রিমো মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় ঘোষণা করেছিলেন নন্দীগ্রামে তিনিই হবেন প্রার্থী। নন্দীগ্রামের তেখালি বাজার মাঠ থেকে রীতিমত চমক দিয়ে মুখ্যমন্ত্রী বলেছিলেন, “আমিই যদি নন্দীগ্রামে দাঁড়াই কেমন হয়?‌ ভাবছিলাম। কথার কথা। একটু বললাম, একটু ইচ্ছে হল।”

এখন নির্বাচন দরজায় কড়া নাড়ছে। এরই মধ্যে ১১ মার্চ মহাশিবরাত্রির দিন নন্দীগ্রাম আসনে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করার জন্য মনোনয়নপত্র জমা দেবেন মুখ্যমন্ত্রী। নন্দীগ্রাম অধিকারী পরিবারের গড় বলেই পরিচিতি। সুতরাং সেখান থেকে বিজেপি প্রার্থী হিসেবে শুভেন্দু অধিকারীরই থাকবেন। এর আগে নন্দীগ্রামে প্রার্থী হওয়ার প্রসঙ্গে শুভেন্দু অধিকারী বলেছিলেন, “মাননীয়াকে নন্দীগ্রামে কম করে ৫০ হাজার ভোটে হারাব। নাহলে রাজনীতি ছেড়ে দেব।”

এখন প্রশ্ন হল তৃণমূলের বর্ষীয়ান নেতা শিশির অধিকারী নন্দীগ্রাম আসনে কাকে সমর্থন করবেন? নিজের দল মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় নাকি নিজের ছেলে শুভেন্দু অধিকারী! যদিও এই প্রশ্নের উত্তরে শিশির অধিকারী বলেছেন, তিনি নিরপেক্ষ থাকবেন। কারোর পক্ষই নেবেন না। “জেলা তৃণমূলের আরেক নেতৃত্ব আখিল গিরি কর্মী বৈঠক করে সকলকে বলেছেন যে অধিকারী পরিবার ও শিশির অধিকারীর সঙ্গে যে যোগাযোগ রাখবে, তাঁকে রেয়াত করা হবে না। প্রার্থী তালিকা চূড়ান্ত করা হয়ে গেলেও, কোনও কিছুই জানানো হয়নি।”