নন্দীগ্রামে প্রচারের ঝড় তুলতে চলেছেন তৃণমূল সুপ্রিমো

0

নন্দীগ্রাম: একুশের নির্বাচনে হটস্পট নন্দীগ্রাম। আলোচনার কেন্দ্রবিন্দুতে এই আন্দোলনের পীঠস্থান। কারণ খোদ মুখ্যমন্ত্রী এবার একুশে নন্দীগ্রামের প্রার্থী। আবার সেই নন্দীগ্রামে প্রচারে গিয়েই মুখ্যমন্ত্রী আহত হয়েছেন। যা অন্য মাত্রা দিয়েছে। তারউপর বিজেপি নন্দীগ্রামেই শুভেন্দুকে ঠেলে দিয়েছে গেরুয়া শিবির। একুশে নন্দীগ্রামে সম্মুখ সমরে মমতা ও শুভেন্দু। এবার সেই নন্দীগ্রামেই প্রচারে ধন তুলতে চলেছে তৃণমূল সুপ্রিমো। আগামি ১ লা এপ্রিল নন্দীগ্রামে ভোট।

শুধু জনসভা নয়, ব়্যালি আর দুয়ারে-দুয়ারে প্রচারেই নেত্রী জোর দেবেন বলে খবর। আগামি ২৬ ফেব্রুয়ারি নন্দীগ্রামে যেতে পারেন মুখ্যমন্ত্রী। ওই সময় দু’টি ব্লকে ব়্যালি করবেন দলনেত্রী। গ্রামে গ্রামে গিয়ে মানুষের সঙ্গে কথা বলবেন দলনেত্রী। মূলত দুয়ারে-দুয়ারে জনসংযোগের উপরই জোর দেবেন তিনি। এদিকে মমতার নন্দীগ্রাম যাওয়ার আগেই শহরের বুদ্ধিজীবীরা নন্দীগ্রামে যাচ্ছেন বলে খবর। তাঁরাও মমতার হয়ে প্রচার করবেন। তবে তার আগে ২০ মার্চ অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায় নন্দীগ্রামে সভা করবেন। উল্লেখ্য, চলতি সপ্তাহেই ফের পূর্ব মেদিনীপুরে যেতে পারেন মমতা।

১৮ মার্চ সম্ভবত এগরায় কর্মসূচি করবেন তিনি। ১৯ ও ২০ মার্চ নন্দীগ্রাম ও সংলগ্ন এলাকায় যাওয়ার কথা। সেখানে ঠাসা কর্মসূচি রয়েছে বলে খবর। পথসভা করার কথা তৃণমূলনেত্রীর। একাধিক মন্দিরেও যেতে পারেন তিনি। বলাই বাহুল্য, অসুস্থতা সত্ত্বেও ভোটের প্রচারে এক বিন্দু খামতি রাখতে রাজি নন মমতা। এমনকী, শেষলগ্নেও নিজের কেন্দ্রে ঝড় তুলতে চান তিনি।