ভোটার কার্ড ছাড়াও ভোট দেওয়া যাবে, জানাল নির্বাচন কমিশন

0

কলকাতা: রাত পোহালেই ভোট। বাংলা মেতে উঠবে ভোট উৎসবে। অর্থাৎ আগামীকাল 27 মার্চ হতে চলেছে প্রথম দফার নির্বাচন। তার আগে অনেকেই ভোটার কার্ড না থাকার কারণে উদ্বেগে রয়েছেন। এ সমস্যার সমাধান বাতলে দিল নির্বাচন কমিশন। নির্বাচন কমিশন জানিয়েছে, সঙ্গে ভোটার কার্ড না থাকলেও ভোট দিতে পারবেন। নির্বাচন কমিশনের তথ্য অনুযায়ী, আধার কার্ড এবং প্যান কার্ড থাকলে সেই দুটি নথি দেখিয়ে ভোট দেওয়া সম্ভব। MNREGA প্রদত্ত জব কার্ড থাকলে সেটি ব্যবহার করেও ভোট দিতে পারবেন ভোটাররা।

এছাড়াও ব্যবহার করতে পারবে পাসপোর্ট। ব্যাংকের এবং পোস্ট অফিসের পাসবুকে যদি ভোটারের ছবি থাকে তাহলে সেটি দেখিয়েও ভোট দেওয়া সম্ভব। শ্রম দপ্তর থেকে দেওয়া হেলথ স্মার্ট কার্ডের সাহায্যে ভোট দেওয়া যাবে। এছাড়াও ড্রাইভিং লাইসেন্স থাকলে দেওয়া যাবে ভোট। এনপিআর এর অধীনে আরজিআইয়ের থেকে দেওয়া কার্ড দেখালেও নিজের পরিচিতি প্রমাণ করা সম্ভব। উপরোক্ত কার্ডগুলি ছাড়াও পেনশনের কাগজ দেখিয়ে যেখানে বৈধ পরিচয় পত্র রয়েছে, সঙ্গে রয়েছে ভোটারের ছবি, সেই পরিচয় পত্র দিয়ে ভোট দেওয়া যাবে।

এছাড়াও এলাকার সাংসদ, বিধায়ক, পরিষদ সদস্যদের দ্বারা প্রদত্ত পরিচয় পত্র দেখালেও ভোট দিতে পারা যাবে। কেন্দ্র, রাজ্য, পাবলিক সেক্টর, আন্ডার টেকিং বা পাবলিক লিমিটেড সংস্থা থেকে পাওয়া পরিচয় পত্র দিয়েও ভোট দেওয়া যাবে। এইসব নথি বা পরিচয় পত্র বা কার্ড গুলির যেকোনো একটি দেখিয়ে এবারে ভোট দেওয়া সম্ভব হবে। এর ফলে ভোটারদের হয়রানি কমবে বলে আশা করছে নির্বাচন কমিশন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here