দ্রুত গতিতে সংক্রমণ ছড়িয়েছে বিজেপি, ইচ্ছাকৃত টিকা পাঠাচ্ছে না কেন্দ্র: তোপ মমতার

0

জলপাইগুড়ি: দ্রুত গতিতে বাড়ছে আবারও করোনা সংক্রমণ। অথচ টিকা আবিষ্কারের পরেও পর্যাপ্ত যোগান নেই সেই নিয়ে আবারও কেন্দ্রের নিন্দা করলেন মুখ্যমন্ত্রী। বরাহনগরের পর এবার জলপাইগুড়ির সভা থেকেও একই বিষয় কটাক্ষ করলেন কেন্দ্রকে মুখ্যমন্ত্রী। মুখ্যমন্ত্রী গতকাল বরাহনগরের সভা থেকে বলেন, “টাকা নিয়ে বসে আছি কিন্তু কেন্দ্রীয় সরকার টিকা দিচ্ছে না।” আর আজ জলপাইগুড়ির সভা থেকে মুখ্যমন্ত্রী বলেন, “কোভিডে লোক মারা যাচ্ছে। আর বিজেপির সুরাটে পার্টি অফিস থেকে ইঞ্জেকশন দিচ্ছে। পার্টির ইঞ্জেকশন। লোককে বাঁচাতে গিয়ে মেরে দিচ্ছে। এসব আমরা করি না। ইঞ্জেকশন দিতে গেলেও জানতে হবে ওটা আসল কিনা। ওটা ডাক্তারদের কাজ।”

রাজ্যে আবারও দ্রুত হারে সংক্রমণ ছড়ানোর জন্য এদিন মমতা বিজেপিকে দোষ দেন তিনি বলেন, “রাজ্যে আবার কোভিড ছড়িয়ে দিয়েছে ওরা। সব ভালো করে দিয়েছিলাম আমরা। সময় মতো যদি টিকা দিয়ে দিত তাহলে আর কোভিড হতো না। ভোটের প্রচারের নামে এবার বাইরে থেকে বিস্তর লোক এনেছে। আর আমাদের এখানে রোগ ছড়িয়ে দিয়ে পালিয়ে গিয়েছে। এখন বলে ভোট দাও? আগের বার কোভিড যখন হয়েছিল তখন এরা কেউ আসেনি। এখন এসেছে ভোট প্রচারের জন্য।”

একই সঙ্গে মুখ্যমন্ত্রী এদিন সরব হন এনআরসি, এনপি আর নিয়েও। তিনি বলেন ‘অসমে ভোট হয়ে গিয়েছে। অসমে ভোট হয়ে গিয়েছে ৬ তারিখে। তার পরই লোকজনকে ডি নোটিস দিয়ে বলছে ডিটেনশন ক্যাম্পে যাও। যেই ভোট হয়ে গেল তেমনি বলছে তোমাকে এনআরসি করে তাড়ানো হবে না কেন জবাব দাও। আমি বলি ওদের এনআরসি করে দিন।”

এছাড়াও এদিন মুখ্যমন্ত্রী বলেন, “বিজেপি কী রকম ছদ্মবেশী ধর্ম করে জানেন? রাজবংশী এলাকায় গিয়ে বলবে, আমরা উদ্বাস্তুদের পছন্দ করি না। উদ্বাস্তু এলাকায় উল্টো কথা বলবে। জেনে রাখুন সব উদ্বাস্তুদের আইনি স্বীকৃতি দিয়ে দিয়েছি। ওরা হিন্দু-মুসলমানে গন্ডগোল লাগায় তা শুধু নয়, ওরা রাজবংশীদের সঙ্গে কামতাপুরীদের লড়াই লাগিয়ে দেয়, হিন্দুদের সঙ্গে খ্রিষ্টানদের লাগায়। জলপাইগুড়ির সঙ্গে আলিপুরদুয়ারের লড়াই লাগিয়ে দেয়। আমরা এরকম দল দেখিনি। আমরা বলি হরেকৃষ্ণ হরি হরি আসুন সবার ভালো করি। আর ওরা বলে, হরে কৃষ্ণ হরি হরি দাঙ্গা লাগিয়ে লোক মারি। হরে কৃষ্ণ হরি হরি গুলি করে লোক মারি।” তৃণমূল সুপ্রিমো এদিন বর্তমান কোভিডের যে দ্রুত সংক্রমণ হয়েছে তার জন্য সম্পূর্ণ দায় বিজেপির তা স্পষ্ট জানিয়েছেন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here