দাউ দাউ করে জ্বলছে হাসপাতাল, চিকিৎসকরা চালিয়ে গেলেন অস্ত্রোপচার

0

রাশিয়াঃ হাসপাতালে চলছিল অস্ত্রোপচার, সেইমুহূর্তেই ঘটল বিপত্তি। হাসপাতালের ছাদে হঠাৎই আগুন লাগে। ঘটনাটি পূর্ব রাশিয়ার ব্লাগোভেসচেনশেক এলাকার আমুর স্টেট মেডিক্যাল অ্যাকাডেমিতে। জটিল ওপেন হার্ট শুরু হওয়ার কিছুক্ষণের মধ্যেই ঘটে এই ঘটনা। তড়িঘড়ি দমকল বাহিনীকে খবর দেওয়া হয়। ঘটনাস্থলে পৌছায় দমকল। স্বাভাবিকভাবেই হুলুস্থুলু গোটা হাসপাতালজুড়ে। কিন্তু সেই অবস্থাতেও একদল চিকিৎসক-নার্স যা করলেন, সেটা কার্যত অবিশ্বাস্য। কঠিন পরিস্থিতিতেও কর্তব্যে অবিচল থেকে ওপেন হার্ট অস্ত্রোপচার চালিয়ে গেলেন আট চিকিৎসক-নার্সের দল।

রাশিয়ায় আপদকালীন মন্ত্রকের পক্ষ থেকে জানানো হয়, ঘণ্টা দুই ধরে টানা অস্ত্রোপচার চালিয়ে যান আট চিকিৎসক-নার্সের দল। যার পরে গোটা পরিস্থিতি কিছুটা নিয়ন্ত্রণে এলে অন্য হাসপাতালে স্থানান্তরিত করা হয় রোগীকে।

১৯০৭ সালে হাসপাতালটি নির্মাণের সময় থেকেই ছাদটি ছিল কাঠের। তাই আগুন লাগার পর থেকে দ্রুত যা ছড়িয়ে পড়তে থাকে। অবস্থার গুরুত্ব বুঝে তাদের সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দিয়ে বিশেষ ব্যবস্থাও নেয় দমকল বাহিনী। তারা দ্রুত জোগাড় করে আনে বিশেষ ধরণের ফ্যান। যাতে অপারেশন থিয়েটার কোনওভাবেই ধোঁয়ায় না ঢেকে যায়, তাই আগুন নেভানোর সঙ্গে একইসঙ্গে চালানো হয় ফ্যানও।

গোটা ঘটনায় কোনো হতাহত হননি বলেই জানান দমকল কর্মী। অস্ত্রোপচার সেরে ওই চিকিৎসক দলের প্রতিনিধি সার্জেন ভ্যালেনটিন ফিলাটোভ বলেন, ‘আমাদের অন্য কিছু করার রাস্তা ছিল না। ওই সময় রোগীকে যে কোনও উপায়ে বাঁচাতেই হত। তাই যা করা সম্ভব, সেটাই আমরা করেছি।’স্থানীয় গর্ভনর ভাসিলি ওরলোভ বিবৃতি প্রকাশ করে কুর্নিশ জানিয়েছেন চিকিৎসক ও দমকলকর্মীদের।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here